বর্তমানে সবচেয়ে লাভজনক ব্যবসা মাত্র ২০ হাজার টাকায় [বিস্তারিত এখানে]

বর্তমানে সবচেয়ে লাভজনক ব্যবসা : বাংলাদেশের জনসংখ্যা বৃদ্ধির সাথে সাথে বেকার তরুণ-তরুণী ও বৃদ্ধি পাচ্ছে। বর্তমানে অনেক শিক্ষিত অর্ধ শিক্ষিত লোকেরা বেকারত্ব সমস্যা নিয়ে ভাবছে।

কিভাবে তারা ইনকাম করার পথ খুঁজে পাবে। আমরা এখানে আপনাকে দেখাবো কিছু লাভজনক ব্যবসা সেগুলো অনুসরণ করার ফলে আত্ম কর্মস্থান এর একটি ইনকাম করার ভালো পথ খুজে পাবেন।

আপনি যদি আমাদের লেখা গুলো মনোযোগ সহকারে পড়েন তবে আপনিও বেকারত্বের মতো একটি সমস্যা থাকে দূর হতে পারবেন। আমরা আপনাকে এখানে দেখাবো বর্তমানে সবচেয়ে লাভজনক ব্যবসা মাত্র 20 হাজার টাকায়।

যারা চাকরির পেছনে দৌড়াদৌড়ি না করে ব্যবসা করতে চান তারা অনেকেই আমাদের দেহ ব্যবসা গুলো অনুসরণ করে প্রতিষ্ঠিত হতে পারবেন। আপনার সাধ্য অনুযায়ী আপনার পছন্দ মত একটি ব্যবসা শুরু করতে পারেন।

বর্তমানে সবচেয়ে লাভজনক ব্যবসা মাত্র ২০ হাজার টাকায় [বিস্তারিত এখানে]
বর্তমানে সবচেয়ে লাভজনক ব্যবসা মাত্র ২০ হাজার টাকায় [বিস্তারিত এখানে]
বর্তমানে বাংলাদেশে অনেক ধরনের ব্যবসা রয়েছে যেগুলো নিজের এলাকায় এবং নিজের বাড়িতে থেকেই করা যায় তাও আবার মাত্র 20000 টাকায়। আপনি যদি এ বিষয়গুলো বিস্তারিত জানতে চান তবে নিচে দেয়া তথ্যগুলো ভালভাবে দেখুন।

যারা নিজের ঘরে বসে ব্যবসা করে প্রতিমাসে ভালো পরিমাণ টাকা আয় করতে চান তারা আমাদের পোস্ট টি মনোযোগ সহকারে পড়তে থাকুন আমরা এখানে জানাবো কি কি ব্যবসা আপনি মাত্র 20 হাজার টাকায় শুরু করে অনেক বেশি লাভ করতে পারবেন।

আরো পড়ুনঃ

টিউটর ব্যবসা

যারা শিক্ষিত বেকার আগে তাদের উদ্দেশ্য করে বলছি আপনি যদি একজন ভালো শিক্ষার্থী হয়ে থাকেন, যেমন ইংরেজি গণিত বিজ্ঞান আইসিটি এর মত সাবজেক্ট গুলো পড়াতে পারেন তাহলে, এ বিষয়গুলো অনুসরণ করে বিভিন্ন ক্লাসের শিক্ষার্থীদের পড়াতে পারবেন।

আপনি যদি এই কাজটি করতে চান তবে আপনাকে অবশ্যই বিভিন্ন জায়গায় আপনার ছাত্র পড়ানো বিজ্ঞাপন প্রচার করতে হবে। বর্তমানে সবথেকে যোগাযোগের মাধ্যম হচ্ছে ফেসবুক আপনি যদি ছাত্র ছাত্রী পড়াতে চান তবে আপনাকে অবশ্যই ফেসবুকের মাধ্যমে আপনার সাবজেক্ট অনুযায়ী বিষয়গুলো শেয়ার করতে হবে।

সে সকল বিজ্ঞাপন দেখে ছাত্রছাত্রীরা আপনার সাথে যোগাযোগ করবে। টিটোরিয়াল ব্যবসায় অনেক লাভ ব্যবসা শুরু করার জন্য আপনাকে প্রথমে কিছু টাকা ইনভেস্ট করতে হবে। সব থেকে মজার বিষয় হচ্ছে আপনি এই টিউটোরিয়াল ব্যবসাটি আপনার নিজের বাড়িতেই করতে পারবেন।

ব্যবসা করার জন্য টাকা প্রয়োজন হবে শুধুমাত্র ছাত্রদের জন্য একটি রুম নিজের বাসা হলে খরচ নেই আর যদি আপনার নিজের ভাষাতেই টিটোরিয়াল পড়ানোর মতো কোনো ব্যবস্থা না থাকে তবে আপনাকে যেকোন একটি পরিবেশ মত জায়গা নির্ধারণ করতে হবে ভাড়ার বিনিময়, তারপর যেসকল ছাত্রছাত্রীরা আপনার কাছে পরতে চাইবে তাদেরকে বসার জন্য ব্যবস্থা করতে হবে যেমন ব্যাঞ্চ, হোয়াইট বোর্ড মার্কার পেন, টুকিটাকি আরো কিছু জিনিসপত্র।

উক্ত বিষয়গুলো আপনি যদি একসাথে রেডি করতে পারেন তবে সেক্ষেত্রে আপনাকে কিছু টাকা ইনভেস্ট করতে হবে তাও আবার মাত্র 20 হাজার টাকা খরচ করে আপনি এই কাজটি শুরু করতে পারেন।

টিউটিরিয়াল ব্যবসায়ী অনেক লাভ, আপনি যদি ইংরেজি সাবজেক্ট পড়া আপনার যদি ছাত্র হয় 10 জন তবে প্রতি জনের কাছে যদি 500 টাকা করে নেন প্রতি মাসে 5000 টাকা পেয়ে যাবেন। ইংরেজির পাশাপাশি আপনি আরও যদি অন্যান্য সাবজেক্ট পড়াতে পারেন তবে সেখান থেকে আপনি আরো বেশি টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

কম্পিউটার ট্রেনিং সেন্টার এর ব্যবসা

আপনি যদি একজন ভালো কম্পিউটার প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত হয়ে থাকেন তবে আপনিও কম্পিউটার ট্রেনিং সেন্টার দিয়ে ভালো পরিমাণ টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

বাংলাদেশের শিক্ষিত যুব সমাজের কম্পিউটার শিক্ষার ওপর অনেক গুরুত্ব বৃদ্ধি পাচ্ছে। বিশাল জনগোষ্ঠীর শিক্ষিত যুবসমাজকে কম্পিউটার শিক্ষায় শিক্ষিত করতে পারলে কম্পিউটার কেন্দ্রে একটি পদ সৃষ্টি হবে।

বাংলাদেশ কম্পিউটার শিক্ষা গ্রহণে ছাত্র-ছাত্রী ও যুবসমাজের অনেক আগ্রহ রয়েছে আপনি কম্পিউটার ট্রেনিং সেন্টারের মাধ্যমে প্রতি মাসে ভালো করে টাকা উপার্জন করতে পারবেন।

আপনি যদি ব্যবসা শুরু করতে চান তবে আপনাকে কিছু টাকা ইনভেস্ট করতে হবে যা হচ্ছে আপনি কমানোর জন্য আপনাকে অবশ্যই একটি কম্পিউটার বা ল্যাপটপ কিনতে হবে এ ব্যবসা করতে গেলে আপনাকে একটু বেশি টাকা ইনভেস্ট করতে হবে কারণ আপনি যদি সাধারণত অফিসিয়াল কাজ করানোর জন্য কম্পিউটার কেনার তবে আপনাকে সর্বনিম্ন, দুইটি কম্পিউটার ট্রেনিং সেন্টারে কাজ শুরু করতে হবে।

বর্তমানে কম্পিউটারের দাম অনেক কম আপনি যদি কম্পিউটারের দোকান গুলোতে গিয়ে আপনার প্রয়োজন মত কম্পিউটার বানিয়ে নিতে পারেন তবে অল্প টাকায় কম্পিউটার বানাতে পারবেন আপনি যদি কম্পিউটার বানাতে চান তবে 20000 টাকা দিয়েই সম্পন্ন দুইটি কম্পিউটার ক্রয় করতে পারবেন। আপনি যদি এই ব্যবসাটি শুরু করতে পারেন তবে প্রচুর টাকা প্রতি মাসে ইনকাম করতে পারবেন।

কসমেটিকস দোকান ব্যবসা

বর্তমানে মার্কেটপ্লেসগুলোতে সবথেকে জনপ্রিয় এবং জাঁকজমক ব্যবসা হচ্ছে কসমেটিকস দোকান ব্যবসা। আমরা জানি এই ব্যবসাটি সাধারণত মহিলাদের জন্য বেশি প্রচলিত। উক্ত কসমেটিকস দোকান ব্যবসাতে প্রচুর পরিমানের লাভ হয়ে থাকে যেমন আপনি যদি একটি পণ্য 20 টাকা দিয়ে কিনা সেটি আপনি খুচরা 35 টাকার মত বিক্রি করতে পারবেন তবে কোন একটা পণ্য তুই যদি আপনার 15 টাকা লাভ হয় তবে কত ইনকাম।

আপনি যদি এই ব্যবসাটি শুরু করতে চান তবে আপনাকে একটি সুন্দর দোকান নির্ধারণ করতে হবে এবং সে দোকানে মহিলাদের প্রয়োজনীয় যাবতীয় কসমেটিকস এর মালামাল উত্তোলন করতে হবে।

আপনি যদি তাদের চাহিদা অনুযায়ী মালামাল কসমেটিকস দোকানে চলতে চান তবে আপনাকে সেই ক্ষেত্রে, ব্যবসা শুরু করার জন্য অন্তত 20 হাজার টাকা দিয়ে এই ব্যবসাটি শুরু করতে পারবেন। আপনি অল্প দিনের মধ্যে অনেক টাকার মালিক হতে পারবেন তাই আপনি সময় নষ্ট না করে ব্যবসাটি শুরু করতে পারেন।

ফার্মেসি ব্যবসা

বর্তমানে মানুষের সবথেকে প্রয়োজনীয় একটি জিনিস হচ্ছে ঔষধ। আপনি যদি নিজের এলাকায় একটি ফার্মেসি দোকান দিতে পারেন তবে সে ব্যবসা থেকে আপনি প্রচুর পরিমাণে টাকা ইনকাম করতে পারবেন এই ব্যবসাতে অনেক লাভ হয়।

আপনি যদি গ্রামে একটি ফার্মেসি ব্যবসা শুরু করতে চান তবে মাত্র 20 হাজার টাকা দিয়ে আপনি এই ব্যবসাটি শুরু করতে পারবেন। এ ব্যবসা করার জন্য আপনাকে মানুষের নিত্য প্রয়োজনীয় ঔষধ তুলতে হবে।

এবং আপনি এই ব্যবসা করার জন্য আপনাকে অবশ্যই বিভিন্ন ধরনের কমিশনপ্রাপ্ত কোম্পানিগুলো থেকে ওষুধ প্রয়োগ করতে হবে তাহলে আপনি সেই ওষুধগুলো বিক্রি করে ভালো পরিমাণ টাকা ইনকাম করতে পারবেন বা লাভ হবে।

মুদি দোকান ব্যবসা

যারা গ্রামে বসবাস করেন তারা বেকার অবস্থায় বসে না থেকে মুদি দোকান ব্যবসা শুরু করতে পারেন এই ব্যবসাটি করতে পারলে অনেক লাভ আছে। আপনি যদি মুদি দোকান করতে পারেন তবে মানুষের নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসগুলো আপনার দোকানে থাকতে হবে যেগুলো মানুষরা প্রতিদিন কিনে থাকে।

আপনি যদি মদের দোকান ব্যবসা শুরু করতে চান তবে প্রথমদিকে আপনাকে 20,000 টাকা দিয়ে এই ব্যবসাটি শুরু করতে হবে এবং আপনি যদি আরো বেশি করেন তাহলে ভালো।

মোদি দোকানে আপনি ছোট ছোট ছেলে মেয়েদের জন্য বিভিন্ন ধরনের বিস্কিট চকলেট ইত্যাদি পণ্যগুলো রাখবেন কারন মোদি দোকানগুলো থেকে ছোট ছোট ছেলে মেয়েরাই বেশি কেনাকাটা করা থাকে। আপনি যদি এই ব্যবসাটি করতে পারেন তবে ভাল করে মনে টাকা আয় করতে পারবেন।

আরো দেখুনঃ অল্প পুঁজিতে লাভজনক ১০ টি ছোট ব্যবসার আইডিয়া [বিস্তারিত এখানে]

শেষ কথাঃ

তো আপনি আমাদের ওয়েবসাইটের মাধ্যমে জানতে পারলেন বর্তমানে যে সকল ব্যবসা করে বেশি বেশি লাভ করা যায় তাও আবার মাত্র 20 হাজার টাকায় ব্যবসা শুরু করে। আপনি যদি মাত্র 20 হাজার টাকা দিয়ে ব্যবসা শুরু করতে চান তবে ব্যবসাগুলো থেকে যেকোনো একটি ব্যবসা বেছে নিয়ে আপনি কাজ শুরু করতে পারেন।

বর্তমানে সবচেয়ে লাভজনক ব্যবসা মাত্র ২০ হাজার টাকায় [বিস্তারিত এখানে] বর্তমানে সবচেয়ে লাভজনক ব্যবসা মাত্র ২০ হাজার টাকায় [বিস্তারিত এখানে] বর্তমানে সবচেয়ে লাভজনক ব্যবসা মাত্র ২০ হাজার টাকায় [বিস্তারিত এখানে] বর্তমানে সবচেয়ে লাভজনক ব্যবসা মাত্র ২০ হাজার টাকায় [বিস্তারিত এখানে] বর্তমানে সবচেয়ে লাভজনক ব্যবসা মাত্র ২০ হাজার টাকায় [বিস্তারিত এখানে]

আপনি যদি আমাদের ওয়েবসাইটে পোস্ট পড়ার পরে উপকৃত হন তবে এই পোষ্টটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করে তাদেরকে এ বিষয়ে জানাতে সহযোগিতা করুন। আমাদের সাথে থাকার জন্য আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ।

Leave a Comment